statistics

করোনাভাইরাস: স্কুল-কলেজের ‘অ্যাসেম্বলি’ হবে শ্রেণিকক্ষে

বাংলাদেশে নভেল করোনাভাইরাস শনাক্ত হওয়ায় প্রেক্ষাপটে স্কুল-কলেজের প্রাত্যহিক সমাবেশ শ্রেণিকক্ষে আয়োজনের নির্দেশ দিয়েছে সরকার।এছাড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর সাংস্কৃতিক, ক্রীড়া ও অন্যান্য অনুষ্ঠান আয়োজন আপাতত বন্ধ রাখারও নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

গত রোববার বিদেশফেরত তিন জনের শরীরে নভেল করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়ার কথা জানায় সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান- আইইডিসিআর।

এরপর সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয়, দেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধের মত পরিস্থিতি সৃষ্টি না হওয়ায় স্কুল-কলেজগুলো আপাতত খোলা থাকবে।

মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের (মাউশি) এক নির্দেশনায় বলা হয়, “মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের অধীন সকল অফিস ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সংশ্লিষ্ট সকলকে এ পরিস্থিতি মোকাবেলায় জনসমাগম এড়িয়ে চলার পরামর্শ দেওয়া হল।

“পুনরাদেশ না পাওয়া পর্যন্ত প্রাত্যাহিক সমাবেশ শ্রেণিকক্ষগুলোতে আয়োজন করতে হবে। সেখানেই জাতীয় সঙ্গীত গাওয়াসহ অন্যান্য কার্যক্রম পরিচালিত হবে।”

এছাড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সাংস্কৃতিক, ক্রীড়া ও অন্যান্য অনুষ্ঠান যেগুলোতে জনসমাগম হয় সে অনুষ্ঠানগুলোর সূচি পুনর্বিন্যাস করে পরবর্তীতে আয়োজনেরও নির্দেশ দিয়েছে মাউশি।

পোষ্টটি লিখেছেন: লেখাপড়া বিডি ডেস্ক

লেখাপড়া বিডি ডেস্ক এই ব্লগে 1139 টি পোষ্ট লিখেছেন .

লেখাপড়া বিডি বাংলাদেশের প্রথম শিক্ষা বিষয়ক বাংলা কমিউনিটি ব্লগ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *